হযরত মুহাম্মদ (সা.) এর চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য

হযরত মুহাম্মদ (সা.) এর চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য লিখেছেন: আল্লাহর বান্দা | প্রকাশিত হয়েছে: ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৩ হযরত মুহাম্মদ (সা.) ছিলেন তুলনাহীন গুন ও বৈশিষ্ট্যের অধিকারী একজন পূর্ণাঙ্গ মানুষ । সত্যবাদিতা, বিশ্বস্ততা, সততা, বীরত্ব, স্বাবলম্বন, দয়া, সহানুভূতি, এককথায় মানব চরিত্রের সকল মহত্ত্বই তার মধ্যে পরিস্ফুটিত হয়ে ঊঠেছিল । তিনি মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের পবিত্র আলোক আভায় এমনভাবে … More হযরত মুহাম্মদ (সা.) এর চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য

প্রচণ্ড রাগ হলে কি করবেন?

আবু হুরাইরা (রাঃ) বলেন, একদিন রসূলাল্লাহ(সঃ) এর কাছে এক ব্যক্তি এসে বললেন,“হে আল্লাহ্‌র রসূল, আপনি আমাকে কিছু অসিয়ত করুন।” উত্তরে নবী করিম(সঃ) বললেন, “তুমি রাগান্বিত হইয়ো না” সে ব্যাক্তি একথাটি কয়েকবার বলল। তিনি (প্রত্যেকবারই একই কথা) বললেন, “তুমি রাগান্বিত হইয়ো না” [সহীহ বুখারী ৫৬৮৬ ইফা]

ক্রোধের সময় নিজেকে নিয়ন্ত্রণ

নবী করিম(সঃ) আরও বলেন, “সে প্রকৃত বীর নয়, যে কাউকে কুস্তীতে হারিয়ে দেয়। বরং সেই প্রকৃত বাহাদুর, যে ক্রোধের সময় নিজেকে নিয়ন্ত্রণ করতে সক্ষম।” [সহীহ বুখারী ৫৬৮৪ ইফা]

ক্ষমা ও জান্নাতের অধিবাসী করবার ওয়াদা করছেনঃ

আল-ইমারানে পরকালে ক্ষমা ও জান্নাতের অধিবাসী করবার ওয়াদা করছেনঃ “যারা নিজেদের রাগকে সংবরণ করে আর মানুষের প্রতি ক্ষমা প্রদর্শন করে, বস্তুতঃ আল্লাহ সৎকর্মশীলদিগকেই ভালবাসেন।” [সূরা আল ইমরান, ৩:১৩৪]